cup, tee, porcelain
Photo by congerdesign on Pixabay

রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধিকারি ৫ টি ভেষজ পানীয়

সুস্থ থাকতে পানি পানের বিকল্প নেই। তাই দিনে কম করে আড়াই থেকে তিন লিটার পানি পান করুন। এ ছাড়া প্রতিদিন ব্যায়ামও করতে হবে।

সুস্থ থাকতে পানি পানের বিকল্প নেই। তাই দিনে কম করে আড়াই থেকে তিন লিটার পানি পান করুন। এ ছাড়া প্রতিদিন ব্যায়ামও করতে হবে। পানির সঙ্গে এমন কিছু উপাদান মেশাতে হবে যা একইসঙ্গে সুস্বাদু ও স্বাস্থ্যকর। প্রকৃতিতে এমন অনেক উপাদান আছে যাতে স্বাদ-গন্ধের পাশাপাশি আছে পুষ্টি জোগায় ও রোগ সারানোর ক্ষমতা রাখে। সেসব মিশিয়ে পান করলে আর বিস্বাদ লাগবে না। পাশাপাশি বাড়বে প্রতিরোধ ক্ষমতাও। সঠিক পদ্ধতিতে খেলে সুস্বাস্থ্যের পাশাপাশি রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতারও উন্নতি হয়।

রোগমুক্তিতে ভেষজ পানীয়-

  • এক চামচ শুকনো আমলকী, হরীতকী ও বহেড়া নামে তিনটি ফলের চূর্ণ এক গ্লাস পানিতে সারা রাত ভিজিয়ে সকালে খালি পেটে খেলে পেট পরিষ্কার হয়। অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট গুণের জন্য এই মিশ্রণ প্রদাহ কম রাখে, রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায় ও ফ্লু ঠেকাতে ভালো কাজ করে।
  • উষ্ণ পানিতে গলা ব্যথার প্রকোপ কমে। গরম পানিতে এক চিমটি দারুচিনির গুঁড়ো ও এক চামচ মধু মিশিয়ে খেলে স্বাদ-গন্ধের যেমন উন্নতি হয় তেমনি উপকার পাওয়া যায়।
  • এক চামচ মেথি শুকনো কড়াইয়ে ভেজে গুঁড়ো করে নিন। এখন এক গ্লাস পানি মিশিয়ে সকালে খালি পেটে খেলে ডায়াবেটিস, ক্ষতিকর কোলেস্টেরল ও এলডিএলের প্রকোপ কমে। প্রদাহ কমে বলে বাড়ে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা ও হজমও ভালো হয়।
  • এক গ্লাস পানিতে এক চামচ মৌড়ি সারারাত ভিজিয়ে রেখে সকালে ছেঁকে খান। নয়তো এক গ্লাস পানি ফুটিয়ে তাতে এক চামচ মৌরি দিয়ে ঢাকা দিয়ে রাখুন ২-৩ মিনিট। তার পর ছেঁকে চায়ের মতো খান। স্বাদ বাড়াতে অল্প লেবুর রস ও এক চামচ মধু মিশিয়ে খেতে পারেন। এই পানীয় পেট ফাঁপা, গ্যাস, বদহজমের উপসর্গ কমায়। এ ছাড়া উচ্চরক্তচাপ ও ডায়াবেটিসের প্রকোপ কমায়।
  • ১ চা চামচ সাদা জিরে, দেড় কাপ পানি, আধ চা চামচ মধু নিন। কড়াইতে জিরে হালকা করে ভেজে দেড় কাপ পানি দিয়ে ৩ থেকে ৪ মিনিট ফোটান। ঠাণ্ডা হলে ছেঁকে পানিটা খেয়ে নিন। এতে ওজন কমবে ও হজম শক্তিও বাড়বে।

More Stories
islam, moslem, pray
সাহু সিজদা কেন, কখন ও কিভাবে করতে হয়